তিন কারণে ‘শিশুর’ জেদ হয়

শিশুর জেদ আপনাকে অতিষ্ট করে তুলতে পারে। সে যা চায় তা দেবার পরেও- দেখা যেতে পারে শিশুর জেদ কমছে না। এই পরিস্থিতে সমস্যার মধ্যেই সমাধান খুঁজে নিন। তিন কারণে শিশুর

জেদ হয় বলে মনে করেন মনোবিদরা। ১. শিশু যখন কোনো কিছু চেয়েই পেয়ে যায় তখন তার নতুন জিনিসের বায়না শুরু হয়। পরবর্তীতে

না পেলেই জেদ ধরে। ২. বাবা-মাকে পর্যা’প্ত সময় ধরে কাছে না পেলে শিশুরা অনেক সময় জেদ দেখাতে পারে। ৩. পরিবেশ বা আশপাশের অনেকের আচরণ দেখেও শিশুরা জেদ করাটা শেখে।

শিশুর জিদ কমাতে অ’ভিভাবকরা যা করতে পারেন সন্তানের যেটা প্রয়োজন সেটা তাকে দিন আর যা চাওয়া তার জন্য অ’পেক্ষা করতে শেখান।

এতে তার জেদ কমবে। আন্তরিক ও নিরাপদ সম্পর্ক সন্তানের স’ঙ্গে গড়ে তুলতে হবে। সন্তানকে সময় দিতে হবে। তার স’ঙ্গে গল্পের বই পড়তে পারেন, ছবি আঁকা বা বিভিন্ন খেলায় অংশগ্রহণ করতে পারেন। আর ভালো সম্পর্ক গড়ে তুলতে হবে।

শিশুরা তাদের আশপাশের সবাইকে দেখে উৎসাহিত হয়। তাদের কথা, আচরণ আর সবকিছুই শিশুরা অনুসরণ করে। নিজেদের কাজ আর বিভিন্ন ভালো ঘটনাগু’লো সন্তানের স’ঙ্গে ভাগাভাগি করে নিতে পারেন। এতে সন্তানের জেদ কমবে। বাবা-মা যদি তাদের আচরণগত পরিমিতিবোধ বজায় রাখেন তবে তাদের সন্তানরা তেমনি হবে। যেহেতু পরিবার শিশুর প্রথম শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। তাই সেখানেই হবে শেখার শুরু। পারিবারিক সুষ্ঠু পরিবেশ তৈরির উদ্যোগ নিন।