free hit counter

পু’রুষের প্র’জনন ক্ষ’মতা বাড়ায় যেসব খাবারে

পৃথিবীতে এমন অসংখ্য দম্পতি রয়েছে যারা প্রজনন অক্ষমতার জন্য নিঃসন্তান জীবন যাপন করেন। পুরুষ ও নারীর প্রজনন অক্ষমতা অনেক

বি’ষয়ের উপর নির্ভর করে। খাদ্যাভ্যাস ও খাদ্যে উপস্থিত গু’ণাগু’ণ তার মধ্যে একটি। প্রজনন ক্ষমতা ও রোজকার খাদ্য তালিকা একে অন্যের স’ঙ্গে নিবিড়ভাবে সম্পর্কিত।

প্রজনন ক্ষমতা বৃ’দ্ধিতে নিয়মিত স্বাস্থ্যকর খাবার গ্রহণ গু’রুত্বপূর্ণ। একসময় সন্তান না হওয়ার জন্য নারীকেই বেশির ভাগ ক্ষেত্রে দায়ী করা

’হতো। তবে এখন সময় বদলেছে। মানুষ শারীরিক সমস্যা, চিকিৎসা সম্পর্কে বি’ষদ জানছে। বর্তমানে পুরুষের মধ্যে বন্ধ্যাত্ব বা ইনফার্টিলিটি সমস্যা বাড়ছে।

বিশেষজ্ঞদের মতে, জীবনযাত্রা ও খাদ্যাভ্যাসে ভুলের কারণে এমনটা হচ্ছে। কিছু খাবার রয়েছে যা পুরুষের ফার্টিলিটি বা প্রজনন ক্ষমতা বাড়ায়। এগু’লো শুক্রা’ণুর সংখ্যা বাড়াতে সহায়ক।

ব্রকোলি-ফুলকপির মতো দেখতে সবুজ রঙা এই সবজিটি অনেকেই পছন্দ করেন না। তবে এখন থেকে খাদ্যতালিকায় ব্রকোলি রাখু’ন। এই সবজিটির এমন কিছু খাদ্যগু’ণ রয়েছে যা শরীর সুস্থ রাখে। ব্রকোলিতে রয়েছে বিটা ক্যারোটিন, ভিটামিন সি ও পটাশিয়াম। এই উপাদানগু’লো ফার্টিলিটি বাড়াতে সাহায্য করে।

আপেল-সুস্বাদু এই ফলের গু’ণের কথা বলে শেষ করা যাব’ে না। পুরুষের শারীরিক সক্ষমতা বাড়াতে পারে আপেলে থাকা খনিজ এবং অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট। তাই প্রতিদিন একটি করে আপেল খান। কলা- কম বেশি সব বাড়িতেই কলা থাকে। এই ফলও স্বাস্থ্যের জন্য অনেক উপকারি। কলাতে ব্রোমেলিন এনজাইম রয়েছে। এটি সে’ক্সুয়াল ক্ষমতা কয়েকগু’ণ বাড়াতে সক্ষম। পুরুষের শরীরের ক্ষমতাও বাড়ায় এই ফল।

ডিম-প্রতিটি মানুষেরই দৈনিক একটি করে ডিম খাওয়া উচিত। এতে রয়েছে ভিটামিন বি, ভিটামিন ডি, প্রোটিন, লিউটিন ইত্যাদি। এই সবগু’লো উপাদানই ফার্টিলিটি বাড়ায়। তাই রোজ সকালে ডিম খান। এ ছাড়া খাদ্যতালিকায় রাখতে পারেন এক গ্লাস দুধ। ধূমপান